1. rkarimlalmonirhat@gmail.com : Rezaul Karim Manik : Rezaul Karim Manik
  2. maniklalrangpur@gmail.com : রংপুর সংবাদ : রংপুর সংবাদ
ছাগল পাট খাওয়াকে কেন্দ্র করে গৃহবধূকে হত্যার চেষ্টা - রংপুর সংবাদ
বৃহস্পতিবার, ১৩ জুন ২০২৪, ০৪:৫৫ পূর্বাহ্ন

ছাগল পাট খাওয়াকে কেন্দ্র করে গৃহবধূকে হত্যার চেষ্টা

ডেস্ক রিপোর্ট
  • আপডেট সময় : রবিবার, ১১ জুন, ২০২৩
  • ১৩২ জন নিউজটি পড়েছেন

 

হাতীবান্ধা(লালমনিরহাট)প্রতিনিধি:
লালমনিরহাটের হাতীবান্ধা উপজেলায় ছাগলে পাট খায়াকে বাধা দেয়ায় আরফিনা বেগম (৩৫) নামে এক গৃহবধূকে কুপিয়ে হত্যা চেষ্টার অভিযোগ উঠেছে বজলার রহমান (৬০) গং এর বিরুদ্ধে।

গত শুক্রবার (২ জুন) বিকালে সিঙ্গিমারী ইউনিয়নের ৮ নং ওয়ার্ডে এ ঘটনা ঘটে।

এ ঘটনা গৃহবধূর পিতা আজিজুল বাদী হয়ে বজলার রহমানকে প্রধান করে ৫ জনের নামে হাতীবান্ধা থানায় লিখিত অভিযোগ করলেও রহস্যজনক কারণে আজও মামলা নথিভুক্ত করেনি পুলিশ।

অভিযুক্তরা হলে ওই উপজেলার সিঙ্গিমারী ইউনিয়ন ৮ নং ওয়ার্ডের মৃত নবী উদ্দিনের ছেলে বজলার রহমান (৬০) ও আজিজুল ইসলাম (৪০)। বজলার রহমানের স্ত্রী মজিদা খাতুন মেরী (৫০), ছেলে মেজবাউল আব্বাস (মুন্না) (২২) এবং আজিজুল ইসলামের স্ত্রী তুর্নাজিনা (৩৫)।

অভিযোগ সুত্রে জানা যায়, ওই এলাকার ছাইয়াকুলের স্ত্রী আরফিনা বেগমের বাড়ির পুর্ব পাশের পাট ক্ষেত খেয়ে নষ্ট করে বজলার রহমানের ৪টি ছাগল। বিষয়টি দেখে আরফিনা বেগম খোয়াড়ে দেয়ার জন্য ছাগল গুলো ধরার চেষ্টা করলে এবং পুর্বে টুকিটাকি বিষয় নিয়ে ঝগড়া হওয়াকে কেন্দ্র করে বজলার রহমানসহ অভিযুক্তরা তাকে মারার জন্য লাঠিসোঁটা নিয়ে ধাওয়া করে। এসময় আরফিনা বেগম প্রাণের ভয়ে নিজ বাড়িতে পালিয়ে যায়। পরে অভিযুক্তরা তার বাড়িতে গিয়ে তাকে ধরে এলোপাতাড়ি মারধোর করাসহ তাকে হত্যার উদ্দেশ্য ধারালো বটি দিয়ে মাথা বরাবর কোপ দিলে আরফিনা বেগম ডান হাত দিয়ে সেটা আটক করার চেষ্টা করে। এসময় সেই ধারালো বটির কোপে আরফিনার ডান হাত কেটে গিয়ে গুরুতর রক্তাক্ত জখম হয়। খবর পেয়ে আরফিনার স্বামী ছাইয়াকুল ইসলামসহ প্রতিবেশীরা ছুটে এসে আরফিনাকে রক্তাক্ত অবস্থায় উদ্ধার করে উপজেলা স্বাস্থ্য কমপ্লেক্সে নিয়ে গেলে কর্তব্যরত চিকিৎসক তার অবস্থা আশংকাজনক দেখে রংপুর মেডিকেল কলেজ হাসপাতালে পাঠিয়ে দেয়।

পরে আরফিনার পিতা আজিজুল বাদী হয়ে বজলার রহমানকে প্রধান করে অভিযুক্ত ৫ জনের নামে থানায় লিখিত অভিযোগ দিলেও রহস্যজনক কারণে আজও মামলা নথিভুক্ত করেনি পুলিশ।

হাতীবান্ধা থানার ওসি শাহ আলম বলেন, আমি খেলার মাঠে আছি। নাম ঠিকানা হোয়াটসঅ্যাপে দেন আমি খেলা শেষে বিষয়টা দেখতেছি।

আপনার সোস্যাল মিডিয়ায় শেয়ার দিন

Leave a Reply

এই ক্যাটাগরীর আরো সংবাদ

© ২০২৩ সর্বস্বত্ব সংরক্ষিত | রংপুর সংবাদ.কম
Theme Customization By NewsSun