1. rkarimlalmonirhat@gmail.com : Rezaul Karim Manik : Rezaul Karim Manik
  2. maniklalrangpur@gmail.com : রংপুর সংবাদ : রংপুর সংবাদ
তিস্তার চরাঞ্চলে ভুট্টার বাম্পার ফলনে খুশি কৃষকেরা - রংপুর সংবাদ
বুধবার, ২৪ জুলাই ২০২৪, ০৫:৫৬ পূর্বাহ্ন
সংবাদ শিরোনাম :
মুইও তাড়াতাড়ি তোর কাছোত আসিম’ বলে সাঈদকে চিরবিদায় দিলেন মা বৃহস্পতিবার সারাদেশে ‘কমপ্লিট শাটডাউন’ ঘোষণা আন্দোলনকারীদের ছয় শিক্ষার্থী হত্যায় বিচার বিভাগীয় তদন্ত কমিটি গঠন করতে হবে : জিএম কাদের সর্বোচ্চ আদালতের রায়ে হতাশ হতে হবে না:প্রধানমন্ত্রী হাতীবান্ধায় তিস্তার তোড়ে বিলীন কমিউনিটি ক্লিনিক নেতা-কর্মীদের সতর্ক থাকার আহ্বান শেখ হাসিনার, জানালেন কাদের রংপুরে নিহত শিক্ষার্থী আবু সাঈদের জানাজা-দাফন সম্পন্ন ক্যাম্পাস ছাড়ছেন রংপুর বেরোবি শিক্ষার্থীরা, সতর্ক অবস্থানে আইনশৃঙ্খলা বাহিনী বেরোবি অনির্দিষ্টকালের জন্য বন্ধ ঘোষণা শিক্ষার্থীদের ধাওয়া খেয়ে ক্যাম্পাস ছেড়েছে বেরোবি ছাত্রলীগ

তিস্তার চরাঞ্চলে ভুট্টার বাম্পার ফলনে খুশি কৃষকেরা

ডেস্ক রিপোর্ট
  • আপডেট সময় : রবিবার, ৯ এপ্রিল, ২০২৩
  • ১২৩ জন নিউজটি পড়েছেন

স্টাফ রিপোর্টার:
লালমনিরহাটের হাতীবান্ধা উপজেলার তিস্তার চরাঞ্চলে এই বছর ব্যাপক ভুট্টার আবাদ হয়েছে। বাম্পার ফলনের সম্ভাবনা থাকায় কৃষকের মুখে হাসি দেখা যাচ্ছে। এ উপজেলার ১২টি ইউনিয়নের মধ্যে ৮ টি ইউনিয়ন নদী বিধ্বস্ত।

এই ৮ টি ইউনিয়নের চরাঞ্চলে লোকজন তাদের জমিতে ভুট্টার পাশাপাশি বিভিন্ন প্রকার ফসল চাষাবাদ করেছেন। ভুট্টা চাষ ঘিরে নদী গর্ভে নিঃস্ব হওয়া হাজার হাজার মানুষের মুখে এখন সুখের হাসি।তিস্তা নদীর করাল গ্রাসে হাজার হাজার পরিবার আবাদী জমি, বসতবাড়ী হারিয়ে নিঃস্ব হয়। এই নিঃস্ব পরিবার গুলো বাঁচার তাগিদে তাদের বংশীয় ঐতিহ্য ত্যাগ করে রিকসা, ভ্যান চালাকসহ দেশের বিভিন্ন এলাকায় গিয়ে শ্রম বিক্রি করছিল। কিন্তু নদীর নাব্যতা হ্রাস পাওয়ায় জেগে উঠে ছোট ছোট অসংখ্য বালু চর। আর এই তিস্তার বালুচরে ভুট্টার আবাদ করে স্বপ্ন বুনছেন কৃষকেরা।

ভাল ফলনের আশাশ তিস্তাপাড়ের কৃষকেরা ভুট্টা চাষাবাদে মাঠে নেমেছে কোমড় বেঁধে। নদীর ধু-ধু বালু চরগুলোতে ভুট্টা চাষাবাদ করেছে কৃষকরা। ভুট্টার ফলন খুব ভাল হওয়ায় স্বাবলম্বী হবে কৃষকেরা ।

বন্যায় আমন ক্ষেতের বীজতলা নষ্ট হওয়ায় যে সমস্ত জমি পতিত পড়েছিল সে জমিগুলোতে ভুট্টার পাশাপাশি কুমড়ার চাষ করেছে কৃষকরা। তাদের আসা আমনের লোকশান যেন ভুট্টা চাষে উঠে আসে। কারণ ভুট্টা চাষে অধিক লাভ হয়। এই বছর এনকে-৪০, প্যাসিফিক-৯৮৪, হাইব্রিড সুপার-৭০২ ও ডন-১১২ জাতের ভুট্টার আবাদ হয়েছে বেশি। পূর্ণবাসনের পাশাপাশি রাজস্ব অর্থায়নে ৫০টি ভুট্টার পরিদর্শনী করা হয়েছে। প্রতি বিঘা জমিতে গড়ে ৩৫ থেকে ৪০ মণ করে ভুট্টার ফলন হয়।

গড্ডিমারী ইউনিয়নের কৃষক সহিদুল ইসলাম জানান,তিস্তার বুকে এবার ভুট্টার ব্যাপক চাষাবাদ হয়েছে। আমিও এবার প্রায় ২ বিঘা জমিতে ভুট্টা চাষ করেছি। আবহাওয়া অনুকুল থাকায় ভুট্টার ফলন ভাল হয়েছে। মোটামুটি অনেকেই ভুট্টা ঘরে তোলার কাজ শুরু করেছে। ভুট্টার ফলন ভাল অনুযায়ী দামটা সঠিক পেলে লাভবান হবে তিস্তাপাড়ের কৃষকেরা।

সিন্দুর্ণা ইউনিয়নের কৃষক কালাম জানান, এই বছর এক বিঘা জমিতে ভুট্টার আবাদ করেছি। কম খরচে অধিক ফলন পাওয়া যায় এবং লাভজনক ফসল হওয়ায় ভুট্টা আবাদের দিকে ঝুঁকছি। ভুট্টার পর একই জমিতে সঠিক সময়ে তোষা পাট লাগানো যায়।

পাটিকাপাড়া ইউনিয়ন পরিষদ চেয়ারম্যান মজিবুল আলম সাদাত বলেন,হাতীবান্ধা তিস্তার চরে প্রায় সকল জমিতেই ভুট্টার আবাদ হয়েছে। গেল বছরের তুলনায় এবার ভুট্টার বাম্পার ফলন হয়েছে। ভুট্টার ভাল ফলনে ভাল দাম পেলে দুঃখ ঘুচবে তিস্তাপাড়ের মানুষের।

হাতীবান্ধা উপজেলা কৃষি অফিসার জানান,ভুট্টা প্রায় ৬০ ভাগই চরাঞ্চলে চাষাবাদ হয়। কৃষকের হাতে উপযুক্ত সময়ে কৃষি উপকরণ ও পরামর্শ পাওয়ার কারণে লাভজনক আবাদ ভুট্টার চাষ দিন দিন বেড়ে যাচ্ছে। এতে স্বাবলম্বী হবে তিস্তাপাড়ের কৃষকেরা।

আপনার সোস্যাল মিডিয়ায় শেয়ার দিন

Leave a Reply

এই ক্যাটাগরীর আরো সংবাদ

© ২০২৩ সর্বস্বত্ব সংরক্ষিত | রংপুর সংবাদ.কম
Theme Customization By NewsSun