শেষ মূহুর্তে প্রচার প্রচারণায় উৎসবমূখর হারাগাছ পৌরসভা | রংপুর সংবাদ
  1. rkarimlalmonirhat@gmail.com : রংপুর সংবাদ : রংপুর সংবাদ
  2. kibriyalalmonirhat84@gmail.com : Golam Kibriya : Golam Kibriya
  3. maniklalrangpur@gmail.com : রংপুর সংবাদ : Manik Ranpur
  4. mukulrangpur16@gmail.com : Saiful Islam Mukul : Saiful Islam Mukul
শেষ মূহুর্তে প্রচার প্রচারণায় উৎসবমূখর হারাগাছ পৌরসভা | রংপুর সংবাদ
শনিবার, ১৭ এপ্রিল ২০২১, ০২:০০ অপরাহ্ন



শেষ মূহুর্তে প্রচার প্রচারণায় উৎসবমূখর হারাগাছ পৌরসভা

রংপুর সংবাদ
  • প্রকাশকালঃ শুক্রবার, ২৬ ফেব্রুয়ারী, ২০২১
  • ১৬

মোঃরিয়াদ ইসলাম, রংপুর

দেশে পঞ্চম ধাপের পৌরসভা নির্বাচনে রংপুরের হারাগাছ পৌরসভা নির্বাচন আগামী ২৮ ফেব্রুয়ারী (রবিবার)অনুষ্ঠিত হতে যাচ্ছে।
নির্বাচনকে কেন্দ্র করে হারাগাছে উৎসব মূখর পরিবেশ বিরাজ করছে! প্রাথীরা শেষ মূহুর্তে সকাল থেকে গভীর রাত পর্যন্ত ভোটারদের দ্বারে দ্বারে নানা প্রতিশ্রুতি দিয়ে ভোটারদের মন জয় করতে ব্যস্ত সময় পার করছেন।এসময় পৌর এলাকার বিভিন্ন অলী গলীতে দেখা যায় প্রাথীরা উঠোন বৈঠক, জনসভা করছে!

উল্লেখ্য, এই পৌর নির্বাচনে বিএনপির মোনায়েম ফারুক ও ইসলামী আন্দোলন থেকে জাহিদ হোসেন তবে সাংগঠনিক দুর্বলতার কারণে এই পৌরসভায় প্রার্থী দিতে পারেনি জাতীয় পার্টি।

জানা যায়, আওয়ামীলীগ মনোনীত মেয়র প্রার্থী হাকিবুর রহমান পেশায় শিক্ষক ছিলেন। অপরদিকে মেয়র পদে নির্বাচনে প্রতিদ্বন্দ্বীতাকারী আওয়ামীলীগের বিদ্রোহী প্রার্থী এরশাদুল তার ছাত্র ছিলেন। তবে পৌরসভায় চারজনই ক্ষমতাবান হওয়ায় কেউ কাউকে ছাড় দিতে নারাজ। শেষ মুহূর্তের প্রচারণায়ও মাঠ দখলে রাখতে চাইছেন এ চার নেতা।

ভোটাররা বলছেন, যিনি যোগ্য প্রার্থী এবং এলাকার উন্নয়ন করবেন তাকেই ভোট দেবেন তারা।

আওয়ামী লীগ প্রার্থী ও বর্তমান মেয়র হাকিবুর রহমান মাস্টার বলেন, হারাগাছ পৌরসভার ব্যাপক উন্নয়ন করেছি। এই পৌরসভার উন্নয়ন অব্যাহত রাখতেই জনগণ নৌকা মার্কায় ভোট দেবেন। আমি এই হারাগাছ এলাকার দীর্ঘদিন শিক্ষক ছিলাম। মেয়র পদে আমার সঙ্গে যে আওয়ামীলীগের বিদ্রোহী প্রার্থী হয়ে নির্বাচনে অংশ নিয়েছে সে আমার ছাত্র।তিনি আরো বলেন,আমি হারাগাছের অসমাপ্ত কাজ সমাপ্ত করতে চাই।

আওয়ামী লীগের বিদ্রোহী প্রার্থী এরশাদুল বলেন, এই পৌরসভার সাধারন মানুষ আমাকে চায়।তাই তাদের জন্য আমি নির্বাচনে অংশগ্রহণ করেছি।আমার নির্বাচন কমিশন ও প্রশাসনের উপর আস্থা আছে যদি সুষ্ঠু নির্বাচন হয় আমার জয় নিশ্চিত।

বিএনপির প্রার্থী ফারুক বলেন, এখানে সুষ্ঠু নির্বাচন নিয়ে শঙ্কা আছে। কোনো দলীয় প্রভাব না খাটালে শতভাগ নিশ্চিত যে, জয় বিএনপি প্রার্থীরই হবে।আমার উত্তরসূরীরা যেভাবে হারাগাছের মানুষের জন্যে কাজ করেছে আমি ও তাদের মতো কাজ করে যেতে চাই।

প্রসঙ্গত,আগামী ২৮ ফেব্রুয়ারী হারাগাছ পৌর সভার নির্বাচন অনুষ্ঠিত হবে।পৌরসভার ৯টি ওয়ার্ডের ২০টি কেন্দ্রে ইলেকট্রিক ভোটিং মেশিনের (ইভিএম) মাধ্যমে ভোট দিবেন ভোটাররা। এ পৌরসভায় মোট ভোটার ৪৯ হাজার ১৭ জন। এর মধ্যে নারী ভোটারের সংখ্যা ২৫ হাজার ৩২৪ এবং পুরুষ ভোটার ২৩ হাজার ৬৯৩ জন ।এ নির্বাচনে ৪ মেয়র প্রার্থী ছাড়াও কাউন্সিলর পদে ৪৮ ও সংরক্ষিত নারী কাউন্সিলর পদে ১০ জন প্রতিদ্বন্দ্বিতা করছেন।

এখন শুধু কিছু সময়ের অপেক্ষা কার মুখে ফুটবে শেষ হাসি।কে হাল ধরবে এই অবহেলিত পৌর এলাকার।কে জনপ্রতিনিধি হবে এই এলাকার অবহেলিত মানুষের।



সংবাদটি ভালো লাগলে শেয়ার করুন

এ বিভাগের আরো সংবাদ





© ২০২১ সর্বস্বত্ব সংরক্ষিত | রংপুর সংবাদ