1. rkarimlalmonirhat@gmail.com : Rezaul Karim Manik : Rezaul Karim Manik
  2. kibriyalalmonirhat84@gmail.com : Golam Kibriya : Golam Kibriya
  3. mukulrangpur16@gmail.com : Saiful Islam Mukul : Saiful Islam Mukul
  4. maniklalrangpur@gmail.com : রংপুর সংবাদ : রংপুর সংবাদ
ফেসবুক ডিলিট, টাইম ম্যাগাজিন প্রচ্ছদে ঢেকে দেওয়া হল জাকারবার্গের চেহারা! - রংপুর সংবাদ
রবিবার, ১৭ অক্টোবর ২০২১, ০৩:২৫ অপরাহ্ন

ফেসবুক ডিলিট, টাইম ম্যাগাজিন প্রচ্ছদে ঢেকে দেওয়া হল জাকারবার্গের চেহারা!

অনলাইন ডেস্ক
  • আপডেট সময় : শনিবার, ৯ অক্টোবর, ২০২১

বর্তমানে বিশ্বজুড়ে আলোচিত ফেসবুক। সম্প্রতি প্রতিষ্ঠানটির বিরুদ্ধে বিভাজন সৃষ্টি, শিশুদের ক্ষতি করা, নিরাপত্তার চেয়ে লাভের দিকে বেশি নজর দেওয়া ও গণতন্ত্র দুর্বল করাসহ নানা অভিযোগ উঠেছে।

মার্কিন সাময়িকী ‘টাইম ম্যাগাজিন’ এর সাম্প্রতিক সংখ্যার প্রচ্ছদে ফেসবুকের সিইও মার্ক জাকারবার্গের একটি ছবি প্রকাশ করা হয়েছে। তবে সেটিতে জাকারবার্গকে ফোকাস না করে বরং তার চেহারার ওপর একটি অ্যাপের চিত্রকে বেশি প্রাধান্য দিয়েছে ম্যাগাজিনটি।

যেখানে দেখা যাচ্ছে জাকারবার্গের মুখের ওপর ‘ডিলিট ফেসবুক’লেখা আইকন। আর সেখানেই দুটি অপশন- একটি ‘ক্যান্সেল’ আরেকটি ‘ডিলিট’।

শুক্রবার ভারতীয় গণমাধ্যম এনডিটিভিতে এ সংক্রান্ত একটি খবর প্রকাশ করা হয়েছে।

জানা যায়, শুক্রবার টাইম ম্যাগাজিন তাদের ভ্যারিফাইড টুইটার অ্যাকাউন্টে ওই ছবি পোস্ট করে।

ফেসবুকের সিভিক মিসইনফরমেশন টিমের সাবেক প্রডাক্ট ম্যানেজার ফ্রান্সেস হিউগেন বলেন, ব্যববহারকারীদের নিরাপত্তার চেয়ে কোম্পানির মুনাফাকে বেশি গুরুত্ব দেয় ফেসবুক। এছাড়া ফেসবুক তার প্ল্যাটফর্মকে সহিংসতার পরিকল্পনাকারীদের ব্যবহার করা থেকে বিরত রাখতে খুব কম কাজ করেছে।

টাইম ম্যাগাজিনের কভার ফটোতে বলা হয়েছে, ফেসবুকের যে টিম মুনাফার ওপরে মানুষের স্বার্থকে স্থান দিত, তাদের নিষ্ক্রিয় করে ফেলা হয়েছে। এক সময় ফেসবুক, সিভিক ইন্টিগ্রিটি টিম নিয়োগ করেছিল। কিন্তু কোম্পানির বেশ কয়েকটি সিদ্ধান্তে ওই টিমের কর্মীরা খুশি হতে পারেনি। ফলে ২০২০ সালের ডিসেম্বরে ওই টিম ভেঙে দেওয়া হয়।

তবে চলতি সপ্তাহের শুরুতে জাকারবার্গ ফ্রান্সেস হিউগেনের এসব তথ্য ‘একদম সত্যি নয়’ বলে দাবি করেছেন।

ফেসবুকে কর্মরত কর্মীদের উদ্দেশ্যে তিনি বলেন, কেউ কেউ বলছেন, ফেসবুকে এমন বিষয় পোস্ট করা হয় যাতে মানুষের মধ্যে উত্তেজনা ছড়িয়ে পড়ে। এ অভিযোগ সম্পূর্ণ মিথ্যা।

পরে তিনি লিখেন, আমার মনে হয় না কোনও সংস্থা এমন কিছু প্রচার করবে যাতে মানুষ ক্রুদ্ধ হয়ে ওঠে। সূত্র: টাইম ম্যাগাজিনএনডিটিভি

আপনার সোস্যাল মিডিয়ায় শেয়ার দিন

এই ক্যাটাগরীর আরো সংবাদ

© ২০২১ সর্বস্বত্ব সংরক্ষিত | রংপুর সংবাদ.কম
Theme Customization By NewsSun